• শিরোনাম

    বজ্রাঘাতে স্কুল শিক্ষার্থীসহ চারজন নিহত

    নিজস্ব প্রতিবেদক | ০৫ জুন ২০২০ | ১০:৩৯ পূর্বাহ্ণ

    বজ্রাঘাতে স্কুল শিক্ষার্থীসহ চারজন নিহত

     

    টাঙ্গাইলে পৃথক স্থানে বজ্রাঘাতে স্কুল শিক্ষার্থী- ধানকাটা শ্রমিকসহ চারজন নিহত হয়েছেন। গতকাল বৃহস্পতিবার বিকেল থেকে সন্ধ্যা পর্যন্ত সদর উপজেলা, দেলদুয়ার, নাগরপুর এবং ঘাটাইল উপজেলায় এ ঘটনা ঘটে।

    নিহতরা হলেন শিক্ষার্থী অনিক (১৫) সদর উপজেলার ধরেরবাড়ী পশ্চিমপাড়া এলাকার আইয়ুব মিয়ার ছেলে, ঘাটাইল উপজেলার সাধুর গলগন্ডা গ্রামের কুজরত আলীর স্ত্রী সখিনা বেগম (৪৫), নাগরপুর উপজেলার কোকাদাইর গ্রামের করিম মিয়ার ছেলে নাসির মিয়া (৩৫)। অন্য একজনের নাম জানা যায়নি।

    টাঙ্গাইলে ব্রজাঘাতে অনিক (১৫) নামের এক স্কুল শিক্ষার্থী নিহত হয়েছে। বৃহস্পতিবার বিকেলে সদর উপজেলার বাঘিল ইউনিয়নের ধরেরবাড়ী পশ্চিমপাড়া এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। তিনি ওই এলাকার. আইয়ুব মিয়ার ছেলে ও ধরেরবাড়ি হাইস্কুল অ্যান্ড কলেজের নবম শ্রেণির ছাত্র।

    স্থানীয় ইউপি সদস্য আব্দুল হক বলেন, বাড়ির পাশে ধান ক্ষেতে মা বাবার সঙ্গে অনিক খড় শুকাচ্ছিলেন। হঠাৎ আকাশ থেকে একটি বজ্র তার ওপর পড়লে সে মাটিতে লুটিয়ে পড়ে। স্থানীয়রা তাকে উদ্ধার করে টাঙ্গাইল জেনারেল হাসপাতালে নিয়ে গেলে তাকে মৃত ঘোষণা করেন।

    দেলদুয়ার উপজেলার আটিয়া ইউনিয়নের নান্দুরিয়া গ্রামে বিকেলে ব্রজাঘাতে এক ধানকাটা শ্রমিকের মৃত্যু হয়েছে। তিনি উত্তরবঙ্গ থেকে উপজেলায় ধান কাটতে দেলদুয়ারে এসেছিলেন। জানা যায়, চারজন শ্রমিক জমিতে ধান কাটতে ছিল। বজ্রপাত শুরু হলে তারা স্যালোমেশিন ঘরে আশ্রয় নেন। প্রকৃতির ডাকে সারা দিতে বাইরে এলে বজ্রাঘাতে একজন শ্রমিকের মৃত্যু হয়।ঘটনার সত্যতা স্বীকার করেছেন আটিয়া ইউনিয়ন চেয়ারম্যান সিরাজুল ইসলাম মল্লিক।অন্যদিকে বিকেলে ঘাটাইল উপজেলার

    সাধুর গলগন্ডা গ্রামে বজ্রাঘাতে সখিনা বেগম নামের এক নারীর মৃত্যু হয়েছে। নিহত সখিনা বেগম (৪৫) ওই গ্রামের কুজরত আলীর স্ত্রী।

    স্থানীয়রা বলেন, সখীনা বেগম ঝড়-বৃষ্টির মধ্যেই তাদের গরু আনতে মাঠে যায়। পরে গরু নিয়ে ফেরার পথে বজ্রাঘাতে তিনি গুরুতর আহত হন। পরে তাকে উদ্ধার করে টাঙ্গাইল জেনারেল হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়। সেখান থেকে তাকে উন্নত চিকিৎসার জন্য ঢাকায় নেয়ার পথে তার মৃত্যু হয়।

    অন্যদিকে সন্ধ্যায় নাগরপুর উপজেলার কোকাদাইর গ্রামে নাসির মিয়া (৩৫) নামের এক ব্যক্তি বজ্রাঘাতে মৃত্যু হয়েছে। নিহত ওই গ্রামের করিম মিয়ার ছেলে। স্থানীয়রা বলেন, বৃষ্টির মধ্যে নাসির ধান দেখতে চকের মধ্যে যায়। পরে সেখান থেকে বাসায় ফেরার পথে বজ্রাঘাত হলে ঘটনাস্থলে তার মৃত্যু হয়।

    Leave a comment

    এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

    আর্কাইভ

    শনি রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র
     
    ১০১১
    ১২১৩১৪১৫১৬১৭১৮
    ১৯২০২১২২২৩২৪২৫
    ২৬২৭২৮২৯৩০  
    বাংলাদেশ বিদ্যুৎ উন্নয়ন বোর্ডে চাকরি
    বাংলাদেশ বিদ্যুৎ উন্নয়ন বোর্ডে চাকরি